দক্ষিণ আফ্রিকায় টেস্ট খেলবেন সাকিব

পাপন

বাংলাদেশের সর্বকালের সেরা তো বটেই, বিশ্বের সেরা অলরাউন্ডারদেরও একজন সাকিব আল হাসান। ক্রিকেটের জন্য নিজের সেরাটা উজার করে দিলেও সাম্প্রতিক সময়ে ছুটি নেওয়ার প্রবণতা এবং টেস্টে কম খেলার কারণে সমালোচনায় পড়তে হয়েছে তাকে। লাল বলে সাকিব খেলবেন কি খেলবেন না তা নিয়ে যেন দ্বিধাদ্বন্দ্ব ক্রমশই বেড়ে চলেছে।

আসন্ন আইপিএলের নিলামের আগে বিসিবিকে দেওয়া এক চিঠিতে সাকিব জানিয়েছিলেন, আসন্ন দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজে টেস্ট খেলবেন না তিনি। পরে আইপিএলে দল না পাওয়ায় দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে তার খেলার সম্ভাবনা বাড়ে।

আজ সোমবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) বিকালে বিসিবির ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস জানিয়েছিলেন, টেস্টে ভবিষ্যৎ নিয়ে বোর্ড সভাপতির সঙ্গে আলোচনায় বসবেন সাকিব। যেখানে সাকিবের আগামী এক বছরের পরিকল্পনা জানতে চাইবে বিসিবি। এদিকে ম্যাচ শেষে সাকিবের টেস্ট খেলা না খেলা নিয়ে ধোঁয়াশা দূর করেছেন নাজমুল হাসান পাপন। গণমাধ্যমের সঙ্গে আলাপকালে নিশ্চিত করেছেন, দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে ওয়ানডের মতো টেস্টেও খেলবেন সাকিব।

এ প্রসঙ্গে পাপন বলেন, ‘আমি আগেও বলেছি এক জায়গায়। সাকিব একটা চিঠি দিয়েছিল ৬ মাসের জন্য টেস্ট ক্রিকেট থেকে বিশ্রাম চাচ্ছিল। পরে যখন ওকে (সাকিব) ডেকে জিজ্ঞেস করলাম তখন দেখলাম যে আইপিএলের জন্য আসলে দুইটা সিরিজ খেলতে পারছে না সে। একটা হচ্ছে অস্ট্রেলিয়া (দক্ষিণ আফ্রিকা) আরেকটা হচ্ছে শ্রীলঙ্কা। তখন আমি সঙ্গে সঙ্গে বলেছিলাম না শ্রীলঙ্কায় খেলতে হবে। সে সঙ্গে সঙ্গে রাজি হয়েছে।’

‘শ্রীলঙ্কায় খেলবে এটা নিয়ে কোনো ইস্যু ছিল না। যেহেতু এখন আইপিএল নেই , আইপিএলে ও যাচ্ছে না তাহলে আমি তো কোনো কারণ দেখছি না যে কারণে সে দক্ষিণ আফ্রিকায় খেলবে না। কাজেই এই চিন্তাটা মাথা থেকে ভুলে যান। এরকম কোনো জিনিস আমার মাথায় নেই। আইপিএলের জন্য যেহেতেু সে খেলছিল না…এখন যেহেতু আইপিএল নেই সে খেলবে।’

বোর্ড সভাপতি আরও যোগ করেন, ‘হ্যাঁ, ও (সাকিব) তো ওয়ানডে খেলছেই। তো টেস্ট খেলবে না? এটা কি বলেন? চলে আসবে? ও (সাকিব) খেলবে।’